কিটি ও তার পরিবার সামরিক অফিসার ভ্রনস্কিকে কিটির পাণিপ্রার্থী মনে করতো। দীর্ঘসময় পর তাঁদের ভুল ভাঙে যখন বুঝতে পারে ভ্রনস্কি কিটিকে নয়, নামভুমিকায় চিত্রিত আন্নাকে ভালবাসে। কুমারী কিটির মন জয় করে বিয়ে করার মধ্যে ভ্রনস্কি কোন রোমাঞ্চ খুঁজে পায় না। তাহলে কি ভ্রনস্কি দোষী? কিটিকে প্রতারণা করবার দায়ে কিংবা বিবাহিত আন্নাকে প্রেমে পড়তে প্রলুব্ধ করার দায়ে? বিখ্যাত উপন্যাস আন্না কারেনিনা‘র উপর দ্বিতীয় সাক্ষাৎকার লেভিন চরিত্রটির কাছে চলুন খুঁজি সেই উত্তর…..

 

‘শ্রেণীই নিষ্ঠুরভাবে মৃত্যুর মুখে ঠেলে দিলো তার সব চাইতে প্রাণবন্ত মানুষদের একজনকে’

লিখেছেন...admin...সেপ্টেম্বর 17, 2017 , 3:15 অপরাহ্ন

খোশগল্প.কম: কনস্তান্তিন দিমিত্রিচ লেভিনের পরিচয় কি আসলে? মস্কো শহরের অধিবাসী না গ্রামের?

লেভিন: লেভিন গ্রামে থাকে। কৃষি, শারীরিক শ্রমকে সে জীবিকার প্রধান জ্ঞান করে। পূজিবাদী কারেনিন, ভ্রনস্কির তুলনায় আমার দৃষ্টিভঙ্গি সামন্ততান্ত্রিক, আদর্শ জীবন যাপনে বিশ্বাসী। বিশ্ববিদ্যালয় জীবন কেটেছে মস্কোতে, তাই শহরকেও আমার ভাল লাগে। বিয়ের আগে পাত্রী খুঁজতেও মস্কোতেই আসি।

 

Konstantin-Levin-anna-karenina-by-joe-wright-32226984-500-351

2012 সালে চিত্রায়িত Anna karenina ছবির লেভিন চরিত্র

 

খোশগল্প.কম: আদর্শ জীবনের কথা বলছেন; অথচ আন্নাকে ঠিক শ্রদ্ধার চোখের দেখতেন না আপনি, কিটির প্রতিও ছিল সংকুচিত মনোভাব- তাহলে এগুলোর ব্যাখ্যা কি?

লেভিন: কিটির ব্যাপারে বলবো, পরিস্থিতির শিকার। কিটির অল্পবয়সে ভ্রুনস্কির প্রতি মোহকে আমি ওঁর স্খলন হিসেবেই দেখি, তাতে করে ঠিক পূর্বের মত বিশ্বাস জন্মায় না।

 

আর আন্নার কথা বলবো, আমি তাকে সম্মান করি না সেটি মিথ্যা কথা কেননা আন্নার ভেতরে ছিল অসাধারণ শক্তি। আন্না তার শ্রেণীর অন্য যে-কোনো মেয়ের তুলনায় বুদ্ধিমতী। আন্নার সমাজে প্রায় সব বিবাহিতা মহিলারই এক বা একাধিক প্রেমিক থাকে; সে খবর স্বামীরা জানে, অন্যরাও জানে। কিন্তু আন্না একদিকে যেমন তার ভাইয়ের মতোই আত্মপ্রবঞ্চনা জানে না, তেমনি আবার অন্যদিক দিয়ে ভাইয়ের চেয়ে অনেক বড় সে, কেননা সে একনিষ্ঠ, সৎ, আন্তরিক। অসম্ভবকে আশা করে, স্বপ্ন দেখে তার জীবনে যে দুইজন আলেক্সি এসেছে- আলেক্সি কারেনিন ও আলেক্সি ভ্রনস্কি, যেন স্ত্রী, মাতা ও প্রেমিকা তার এই তিন ভূমিকায় কোনো বিরোধ নেই। কিন্তু সেটাতো দুরাশা মাত্র!

 

খোশগল্প.কম: আচ্ছা। ভ্রনস্কি কিটিকে বিয়ে করে সুখী হতে পারতো, তার আকাঙ্খিত বিলাসী জীবন পেত; কেন অসম্ভবকে পেতে চাইলো?

লেভিন: যখন সে শুরু করেছিল তখন ভেতরে ভেতরে মোকাবিলা করছে একটি চ্যালেঞ্জের। তার অবিবাহিত পিটার্সবুর্গীয় দৃষ্টিতে কুমারী মেয়ের প্রেমে পড়ায় কোনো গৌরব নেই, যে-জন্য কিটিকে, বিয়ে করবে এমন একটা ভাব সে দেখালো বটে, কিন্তু আর এগুলো না। বিবাহিতা মেয়েকে জয় করার একটা গৌরব আছে, বিশেষ করে মহিলা যদি হন দুর্লভ, হন যদি শীর্ষস্থানীয় আমলার স্ত্রী।

 

খোশগল্প.কম: তাহলে বিবাহিত আন্নাকে প্রেমে প্রলুব্ধ করার জন্য ভ্রনস্কি কি দায়ী নয়?

তা নির্দিষ্ট করে আমরা বলতে পারি না। পারিবারিক জীবনের প্রতি তার শ্রদ্ধা ছিল না। বরং বলা যায় তার ব্যক্তিগত জীবনেও সামরিক ছাপ পরিস্ফুট ছিল। তার বাবা মারা গিয়েছিল অল্প বয়সে এবং মায়ের ছিল একাধিক প্রেমিক। বড় ভাইয়ের বৈধ এবং অবৈধ দুটি সম্পর্কই ছিল। সে হিসেবে ভ্রনস্কি আন্নাকে স্বীকৃতি দিয়ে পারিবারিকই জীবনই চেয়েছে, সন্তানকে সম্পদের উত্তরাধিকার করতে চেয়েছে অন্যদিকে আন্নার সন্তানের প্রতি আন্নার স্নেহ তাকে করেছে বিরক্ত।

 

খোশগল্প.কম: তাহলে আন্না আত্মহত্যার প্রেরণা কিসে পেল বলে আপনার মনে হয়?

লেভিন: আন্না ভয় পেয়েছিল, ভয় করে সে অন্য কাউকে নয়, সমাজকে নয়, ভয় করে ভ্রনস্কিকে। ভয় এবং আরো কিছু; যেমন সন্দেহ। যদি ভ্রনস্কির প্রেম হ্রাস পায়, যদি তাকে ভালো না বাসে আগের মতো? তার প্রতি ডলি, কিটির করুণাসুলভ আচরণও তাকে আঘাত করেছে।

 

খোশগল্প.কম: আন্নার মৃত্যু কি তৎকালীন আইনের কিছু সীমাবদ্ধতাকে ইঙ্গিত করে না?

লেভিন: এই ব্যর্থতা দু’জন ব্যক্তির নয় কেবল, ব্যর্থতা একটি শ্রেণীর। আন্নার ট্র্যাজেডিতে সমাজের ভূমিকা অস্বীকার করবো কি করে? শ্রেণীই নিষ্ঠুরভাবে মৃত্যুর মুখে ঠেলে দিলো তার সব চাইতে প্রাণবন্ত মানুষদের একজনকে। সমাজ দিলো না তাকে একই সঙ্গে মা, প্রেমিকা ও স্ত্রী হবার অধিকার। তাকে বিভক্ত করলো এবং করলো বিচ্ছিন্ন।

 

(লেভিন চরিত্রটির কল্পিত সাক্ষাৎকার তৈরিতে অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীর আন্না কারেনিনার আত্মহনন  লেখাটির সাহায্য নেয়া হয়েছে)

 

বইটি সংগ্রহে রাখতে চাইলে- rokomari.com/book/18310/আন্না-কারেনিনা

Share on Facebook0Share on Google+0Tweet about this on TwitterShare on LinkedIn0Pin on Pinterest0

মতামত